বাড়ির পাশে খেলছিল ২ ছাত্রী, ঘরে আটকে ধর্ষণ।

বাড়ির পাশে খেলছিল ২ ছাত্রী, ঘরে আটকে ধর্ষণ।

নড়াইলের লোহাগড়ায় জাহিদ শেখ (৫০) নামের এক ব্যক্তির বিকৃত লালসার শিকার হয়েছে দুই ছাত্রী। সোমবার বিকেলে উপজেলার ইতনা গ্রামে ওই ব্যক্তির বাড়িতে ঘটনাটি ঘটে। এ ব্যাপারে ধর্ষণের শিকার ছাত্রীর মা বাদী হয়ে লোহাগড়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ তাদের উদ্ধার করে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নড়াইল সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

এজাহার সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার ইতনা গ্রামের দক্ষিণপাড়ায় ইতনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী (১১) ও চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী (১০) সোমবার স্কুল শেষে বাড়িতে এসে খাওয়া-দাওয়া করে বিকেলে বাড়ির পাশে বাগানে খেলছিল। এ সময় প্রতিবেশী আবুল শেখের লম্পট ছেলে জাহিদ শেখ লেবু ও আম খাওয়ানোর কথা বলে তাদেরকে নিজ বাড়িতে ডেকে নিয়ে যায়।

পরে দুই ছাত্রীকে ঘরে আটকে ভয় দেখিয়ে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণ এবং চতুর্থ শ্রেণির অপর ছাত্রীর সঙ্গে বিকৃত আচরণসহ ধর্ষণের চেষ্টা করেন ওই ব্রক্তি। এ সময় তাদের চিৎকারে প্রতিবেশীরা আসলে জাহিদ শেখ ছাত্রীদের ঘর থেকে বের করে দিয়ে পালিয়ে যান।

এ ঘটনায় পঞ্চম শ্রেণিতে পড়ুয়া ছাত্রীর মা বাদী হয়ে মঙ্গলবার লোহাগড়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ ভিকটিম দুই ছাত্রীকে উদ্ধার করে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নড়াইল সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

ফলো করুন-
ভিডিও দেখতে সাবস্ক্রাইব করুন সমকাল ইউটিউব
মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে লোহাগড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ আবু হেনা মিলন জানান, ধর্ষণকারী জাহিদ শেখ পলাতক রয়েছে। তাকে আটকের জোর চেষ্টা করা হচ্ছে।


Leave a Reply

Your email address will not be published.